সুস্থ থাকতে প্রাতরাশে করা 10 টা ভুল শুধরে নিন

एनडीटीवी  |  Updated: July 09, 2018 06:19 IST

Reddit
Here Are Top 10 Breakfast Mistakes You Need To Stop Making Today!
Highlights
  • ওজন কমাতে চাইলে প্রাতরাশ এড়িয়ে যাওয়া উচিত নয়
  • প্যাকেটজাত মিষ্টি খাদ্য ও পানীয় গ্রহণ আমাদের স্বাস্থ্যের পক্ষে ক্ষতিকর
  • ঘুম থেকে উঠেই প্রাতরাশ করবেন না, আগে একগ্লাস গরম জল পান করবেন
আমরা সকলেই জানি আমাদের দৈনন্দিন জীবনে প্রাতরাশের ভূমিকা অপরিসীম। সারাদিনে আমরা যা কিছু খাই তার মধ্যে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ হল প্রাতরাশ। আর প্রাতরাশ এড়িয়ে গেলে আমাদের স্বাস্থ্যের ওপর বিরূপ প্রভাব পড়ে। শুধুমাত্র ওজন কমানোর জন্যই নিয়মিত প্রাতরাশ করা উচিত তা নয়, আমাদের সারাদিনের কাজের জন্যও শক্তি আমরা প্রাতরাশ থেকেই পাই। সারাদিন ভালভাবে কাটানোর জন্য প্রাতরাশে আমাদের ভিটামিন, মিনারেল ও অন্যান্য পুষ্টিগুণ সমৃদ্ধ সুষম খাবার খাওয়া উচিত। সকালে প্রাতরাশ এড়িয়ে গেলে আমাদের ওজন কমার বদলে আরও বেড়ে যায়।

কিন্তু প্রাতরাশে যা হোক কিছু খেয়ে নিলেই হয় না। এমন কিছু খাওয়া উচিত যা আমাদের শরীরে পুষ্টিদ্রব্য সরবরাহ করতে পারে। অনেকেই তৈলাক্ত, মিষ্টি কিংবা অত্যাধিক ক্যাফাইন বিশিষ্ট খাবার প্রাতরাশে খেয়ে থাকেন। কিন্তু এই ধরণের খাবার আমাদের ওজন কমানোর বদলে আরও বাড়িয়ে দেয়। সকালে যথাযথ প্রাতরাশ অবশ্যই করা উচিত। আমরা প্রাতরাশে সাধারণত কিছু ভুল করে থাকি। সেগুলো আমাদের যত দ্রুত সম্ভব এড়িয়ে যাওয়া উচিত।
 
breakfast mistakes weight lossসাধারণত প্রাতরাশে যে সমস্ত ভুলগুলো আমরা করে থাকি, জেনে নিনঃ

1. তৈলাক্ত খাবার খাওয়া:  ভারতীয় ঐতিহ্যবাহী বেশ কিছু তেল, ঘি সমৃদ্ধ খাবার আছে যেগুলো আমরা প্রাতরাশে গ্রহণ করে থাকি। কিন্তু সকালে এই সমস্ত খাবার খাওয়া উচিত নয়। তৈলাক্ত খাবার আমাদের হজমের সমস্যা তৈরি করতে পারে। তাছাড়াও এই ধরণের খাবারে আমাদের ওজন বেড়ে যাওয়ার প্রচন্ড সম্ভাবনা থাকে।

2. মিষ্টি খাদ্য এবং পানীয়:  প্রক্রিয়াজাত এবং প্যাকেটজাত বহু খাবারেই প্রচুর পরিমাণে মিষ্টি থাকে। সেগুলোর পুষ্টিগুণ কম এবং ক্যালোরির পরিমাণ থাকে বেশি। তাই সেই খাবারগুলো এড়িয়ে যাওয়াই উচিত।

3. ফল এবং সবজির রস:  বিভিন্ন ধরণের ফল এবং সবজিতে প্রচুর পরিমাণে প্রাকৃতিক মিষ্টতা এবং ফাইবার থাকে। কিন্তু ফল বা সবজির রসে ফাইবার বাদ চলে যায় ফলে পুষ্টিগুণ কমে যাওয়ার সম্ভাবনা থাকে। তাই প্রাতরাসে ফলের রস খাওয়ার বদলে গোটা ফল খেলে বেশি উপকার পাওয়া যায়।

4. ক্যাফাইন জাতীয় খাদ্য বা পানীয় গ্রহণ:  বিশ্বের একটা বড় সংখ্যক মানুষ সকালে প্রাতরাশে ক্যাফাইন জাতীয় খাদ্য বা পানীয় গ্রহণ করে। এর মধ্যে চা এবং কফি অত্যন্ত উল্লেখযোগ্য। এক কাপ চা বা কফি আমাদের মুড এবং মেটাবলিজম বাড়াতে পারে কিন্তু অত্যাধিক চা বা কফি পান করা উচিত নয়।
 
breakfast mistakes weight loss


5. অপর্যাপ্ত আহার:  আমরা প্রায়ই সকালে ব্যস্ততার ফলে ঠিকমতো খাই না। সকালে পেট ভরে খাওয়া উচিত, নাহলে কিছুক্ষণের মধ্যেই আমাদের আবারও খিদে পেয়ে যাবে এবং কাজে মন বসবে না আর অস্বাস্থ্যকর খাবার খেতে ইচ্ছে করবে। যা আমাদের স্বাস্থ্যের পক্ষে অত্যন্ত ক্ষতিকর।

6. প্রাতরাশের জোগান না রাখা:  সকালে কী খাবেন তার জোগাড় আগে থেকে করে রাখা উচিত, যেটা আমরা অনেকেই করি না। সকালে যা হোক কিছু না খেয়ে চিঁড়ে, ওট, দুধ, পাউরুটি ডিম ইত্যাদি পুষ্টিকর খাবার খাওয়া উচিত।

7. বাইরের খাবার দিয়ে প্রাতরাশ করা:  অনেক রেস্তরাঁতেই আজকাল সারাদিন প্রাতরাশের খাদ্যের জোগান থাকে। কিন্তু সেখানে নিয়মিত খাওয়া একেবারেই উচিত নয়। বাড়িতে প্রাতরাশ করার অভ্যাস করুন। এর ফলে আপনি কতটা ক্যালোরি গ্রহণ করলেন, কতটা পুষ্টিদ্রব্য আপনার শরীরে প্রবেশ করল সে হিসাব আপনার থাকবে।

8. ফ্যাট গ্রহণ না করা:  আমাদের মনে সব সময় ভয় থাকে ওজন বেড়ে যাওয়ার। তাই সকালে যে ডিমটা খাই, তার কুসুমটাও আমরা বাদ দিয়ে দিই। কিন্তু এইভাবে আমরা আমাদের দেহের প্রয়োজনীয় ফ্যাটি অ্যাসিড এবং উপকারী পুষ্টিদ্রব্য থেকে বঞ্চিত হই। তাই প্রাতরাশে ফ্যাট পুরোপুরি বাদ দিয়ে দেওয়া উচিত নয়।
 

breakfast mistakes weight loss


9. অবশিষ্ট খাবার খাওয়ার অভ্যাস:  আগের রাতের অবশিষ্ট পিজ্জা, বার্গার, ফ্রায়েড রাইস ইত্যাদি সকালে প্রাতরাশে খাওয়ার অভ্যাস অনেকেরই আছে। কিন্তু এই সমস্ত খাবারে পুষ্টিগুণ একেবারেই থাকে না। আর এই অভ্যাস একেবারেই ভাল না। গরম করার ফলে খাবারের গুণাগুণ নষ্ট হয়ে যায়। বাসি খাবার খেয়ে আমাদের হজমের সমস্যা দেখা দেওয়ার সম্ভাবনা থাকে এবং আমাদের ওজন কমার বদলে আরও বেড়ে যায়।

10. বিছানাতেই প্রাতরাশের অভ্যাস:  সকালে ঘুম থেকে উঠেই প্রাতরাশ করবেন না। সকালে ঘুম থেকে উঠে আগে এক গ্লাস গরম জল পানের অভ্যাস করা উচিত। এর ফলে আমাদের হজম ক্ষমতা বৃদ্ধি পায়। এছাড়াও সকালে খালি পেটে একগ্লাস গরম জল পান করলে আমাদের শরীরের বিভিন্ন উপকার হয় এবং আমাদের ওজন কমতেও সাহায্য হয়। তাই সকালে ঘুম থেকে ওঠার কমপক্ষে আধ-এক ঘন্টা পর প্রাতরাশ করবেন।

Comments
এই প্রাতরাশের অভ্যাসের ফলে আপনার নিশ্চিতভাবে ওজন কমবে কি না তা আমাদের জানা নেই। কিন্তু নিয়মিত অভ্যাসের ফলে আপনার স্বাস্থ্যের পরিবর্তন অবশ্যই ঘটবে।
 



খাদ্য সংক্রান্ত সাম্প্রতিক খবর, স্বাস্থ্য সংক্রান্ত টিপস, রেসিপি জানতে, লাইক করুন আমাদের Facebook পেজ অথবা ফলো করুন Twitter আর সাবস্ক্রাইব করুন YouTube

Advertisement
Advertisement