নাক ডাকা? ঘুমের আগে দু’ পেগ মদ? সারা জীবনের ঘুমের সর্বনাশ করছেন না তো?

एनडीटीवी फूड डेस्क  |  Updated: April 17, 2019 15:57 IST

Reddit
Snoring Could Be Sign of Sleep Disorder: Eat These 5 Foods To Promote Good Sleep

ঘুমোলেই নাক ডাকার সমস্যা? ঘুমোতে যাওয়ার ঠিক আগে মদ খাওয়ার অভ্যাস? দুইয়ে মিলে শরীরের সর্বনাশ হয়ে চলেছে আপনার অজান্তেই। গবেষকদের একটি দল প্রমাণ করেছে যে নাক ডাকার সমস্যা কীভাবে ঘুমের নানা জটিলতা বাড়াচ্ছে। এই গবেষণা অনলাইনে স্লিপ হেলথ জার্নালে প্রকাশিত হয়েছে। গবেষণায় বলা হয়েছে যে, যারা বলেন যে দিনে ৫ ঘণ্টা ঘুমিয়েও তাঁরা চালিয়ে দিতে পারেন তাঁরা নিজেদের স্বাস্থ্যসম্পর্কিত ঝুঁকির মধ্যে নিয়ে যাচ্ছেন এবং দীর্ঘমেয়াদে তাঁদের ঘুমের নানা অসুখ দেখা যাবে।

Summer Diet Tips: একটি আনাজেই ওজন থাকবে নিয়ন্ত্রণে

নিউইয়র্ক ইউনিভার্সিটি ল্যাঙ্গন হেলথের গবেষক রেবেকা রবিন্স বলেন, “ঘুম জীবনের একটি অতীব গুরুত্বপূর্ণ অংশ যা আমাদের উত্পাদনশীলতা, মেজাজ এবং সাধারণ স্বাস্থ্য এবং সুস্থতাকে প্রভাবিত করে।"

গবেষণার জন্য গবেষকরা ঘুম সম্পর্কিত ২০ টি সাধারণ ধারণা সনাক্ত করতে ৮,০০০ এরও বেশি ওয়েবসাইট পর্যালোচনা করেন। ঘুম বিশেষজ্ঞদের ওই দল দেখেন এই উদ্ভুত ধারণা গুলিকে ঠিক কীভাবে শ্রেণিবদ্ধ করা যেতে। এগুলো কি আসলে মিথ নাকি সত্যিই কোনও বৈজ্ঞানিক ব্যাখ্যা রয়েছে। মিথের সঙ্গে জড়িত সম্ভাব্য ক্ষতির বিষয়েও তাঁরা বক্তব্য রাখেন।

বিজ্ঞানীরা নাক ডাকা সম্পর্কে কিছু সাধারণ ভ্রান্তি তুলে ধরেছেন। হালকা নাক ডাকা তেমন ক্ষতিকর না। কিন্তু আপনি যদি জোরে নাক ডাকেন তাহলে অবশ্যই ডাক্তার দেখানো উচিৎ কারণ এটি স্লিপ অ্যাপনিয়ার লক্ষ্মণ হতে পারে, এটি একটি গুরুতর ঘুমের অসুখ। নাক ডাকার সমস্যার সঙ্গে হার্টের রোগ এবং অন্যান্য অসুস্থতা জড়িত। গবেষকরা বলছেন, ঘুমোতে যাওয়ার আগে মদ্যপান সত্যিই অস্বাস্থ্যকর।

গবেষক গেরার্ডিন জিন লুই বলেছেন, “ঘুম স্বাস্থ্যের জন্য গুরুত্বপূর্ণ, এবং জনসাধারণকে এই গুরুত্বপূর্ণ জনস্বাস্থ্য সম্পর্কিত বিষয়ে অবহিত করার জন্য আরও বেশি প্রচেষ্টা করা দরকার।”

রবিন্স এবং তাঁর সহকর্মীরা ঘুমের সময়সূচী তৈরি করে জানিয়েছেন কমপক্ষে সাত ঘন্টার ঘুম আমাদের জীবনে আবশ্যিক। 

পেট ও মন দুই ভরবে, পাঁচটি স্বাস্থ্যকর ডিনার রেসিপির সন্ধান



ঘুম পাড়ানি খাবার

আপনার খাদ্য ঘুমের গুণগত মানের ক্ষেত্রে একটি বিশেষ ভূমিকা পালন করে। খেয়েরি কখনোই ঘুমিয়ে পড়বেন না বা ঘুমোতে যাওয়ার ঠিক আগে খাবেন না। সন্ধ্যায় মিষ্টি জাতীয় খাবারও কম খান, মিষ্টি মস্তিষ্কের শক্তি কমতে দেয় না, ফলে ঘুম পায় না। ট্রিপটোফান সমৃদ্ধ খাবার খেতে হবে যা সেরোটোনিন উত্পাদনকে বাড়াতে সহায়তা করে। সেরোটোনিন (Serotonin) মস্তিষ্ককে শান্ত করতে সাহায্য করে। ম্যাগনেসিয়াম সমৃদ্ধ খাবার খান, এতে পেশীর আরাম হয়।



এখানে রইল এমন কিছু খাবার যা ঘুম ভালো করার জন্য উপকারি।

1. দুধ (Milk)

2. বাদাম (Almonds)

3. কলা (Banana)

4. ওটস (Oats)

5. চেরি (Cherries)

Comments


 



খাদ্য সংক্রান্ত সাম্প্রতিক খবর, স্বাস্থ্য সংক্রান্ত টিপস, রেসিপি জানতে, লাইক করুন আমাদের Facebook পেজ অথবা ফলো করুন Twitter আর সাবস্ক্রাইব করুন YouTube

Advertisement
সৌন্দর্য
Advertisement